আজ ৭ই আষাঢ়, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ, ২১শে জুন, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ

কেশবপুরে আলোচিত ভুয়া ডাক্তার মিঠুআটক ও ১৫ দিনের কারাদন্ড

কেশবপুর (যশোর) প্রতিনিধি:

 

যশোরের কেশবপুরের বহুল আলোচিত শিশু ডাক্তার রেজাউল ইসলাম মিঠুকে ভ্রাম্যমাণ আদালত ১৫ দিনের বিনাশ্রম কারাদন্ড দিয়েছে।

 

শুক্রবার হাসপাতাল মোড়ের সোহান ফার্মেসিতে রোগী দেখার সময় উপজেলা নির্বাহী অফিসার ও নির্বাহী মেজিস্ট্রেট এম এম আরাফাত হোসেন ভ্রাম্যমাণ আদালত পরিচালনা করে তাকে ওই কারাদন্ড প্রদান করেন।

 

তার বিরুদ্ধে মেডিকেল কলেজে পড়াশোনা না করেই নামের আগে ডাক্তার লেখা, বিএমডিসির রেজিস্ট্রেশন না থাকাসহ এমবিবিএস ডাক্তার পরিচয়ে রোগীদের সঙ্গে প্রতারণা করার অভিযোগ রয়েছে।

 

এছাড়া রেজাউল ইসলাম মিঠু একজন ফার্মাসিস্ট হয়েও শিশু বিশেষজ্ঞ সেজে প্রতিদিন রোগী দেখছিলেন কেশবপুর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স মোড় ও সাগরদাঁড়ির ইউনিয়নের চিংড়া বাজারে।

 

জানাগেছে , রেজাউল ইসলাম মিঠু প্রতিদিন সকাল ৯টা থেকে দুপুর ২টা পর্যন্ত চেম্বার করছেন চিংড়া বাজারের ইসলাম ফার্মেসিতে ও বিকেল ৪টা থেকে রাত ৯টা পর্যন্ত চেম্বার করছেন হাসপাতাল মোড়ের সোহান ফার্মেসিতে।

 

রোগীর ব্যবস্থাপত্রে নিজের নামের আগে ডাক্তার ব্যবহার করছেন। ডিগ্রি লিখছেন ডি.এম.এফ (ফার্মাসিস্ট)। সেইসাথে নারী, পুরুষ ও শিশু রোগের প্রাথমিক চিকিৎসা দেয়া হয় উল্লেখ করছেন। রোগী দেখতে ফি নিচ্ছেন একশ’ টাকা। এমনকী, রোগী দেখার পর পরীক্ষা-নিরীক্ষা করার জন্য ব্যবস্থাপত্র লিখে দিচ্ছেন।

 

বিষয়টি উপজেলা নির্বাহী অফিসার এম এম আরাফাত হোসেনের নজরে আসলে শুক্রবার সন্ধ্যায় তিনি কেশবপুর শহরের হাসপাতাল মোড়ের সোহান ফার্মেসীতে অভিযান পরিচালনা করে ফার্মাসিস্ট রেজাউল ইসলাম মিঠুকে ভ্রাম্যমাণ আদালতে ১৫ দিনের বিনাশ্রম কারাদন্ড দেন।

 

     এ বিভাগের আরো সংবাদ
Share via
Copy link
Powered by Social Snap