আজ ২১শে আশ্বিন, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ, ৬ই অক্টোবর, ২০২২ খ্রিস্টাব্দ

সন্তানদের পা ঝলসে দেওয়ায়, পিতার বিরুদ্ধে থানায় মা এর অভিযোগ

বিশেষ প্রতিনিধি,সাভার (ঢাকা)

সাভারে নিজের ছেলে ও মেয়েকে গরম খুন্তি দিয়ে পা ঝলসে দেয়ার ঘটনা ঘটায় মাদকাসক্ত এক পিতা।  এ ঘটনায় সাভার মডেল থানায় দুই বাচ্চার মা ঐ পিতা মোঃ নুর আলম (৩২) এর বিরুদ্ধে অভিযোগ দায়ের করেন। আহত শিশুদের সাভার সাস্থ্য কমপ্লেক্সে হাসপাতালে চিকিৎসা দেওয়া হচ্ছে।

মঙ্গলবার (১১ আগষ্ট) সকালে থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) কাজী মাইনুল ইসলাম, অভিযোগের বিষয়টি  নিশ্চিত করেন।

এর আগে বুধবার (১০ আগস্ট) দুপুরে পৌর এলাকার ৩ নং ওয়ার্ডের সবুজবাগ কোবা মসজিদের পাশে হাবিলদার আব্দুল লতিফের বাড়িতে এই নির্যাতনের ঘটনা ঘটে। আহত ৯ বছরের শিশু আরোবি ও তার ছোট ভাই ৫ বছরের আলিফকে সাথে নিয়ে তার মা জয়মেনা খাতুন রাত ১০ টার দিকে সাভার মডেল থানায় একটি অভিযোগ দায়ের করে ।

লিখিত অভিযোগে বলা হয়, ১১ বছর আগে নুর আলম ও জয়মেনা খাতুনের বিয়ে হয়। তাদের ঘরে এক মেয়ে ও ছেলের জন্ম হয়। মাদকাসক্ত নুর আলম কাজকর্ম না করে যৌতুকের জন্য দীর্ঘদিন ধরে স্ত্রীকে শারীরিক ও মানসিক নির্যাতন করে আসছিলেন।
শেষমেশ গত ২৮ জুলাই যৌতুকের টাকা দাবি করার পর টাকা না দিলে ছেলে মেয়েকে বাসায় আটকে রেখে পরে স্ত্রী জয়মেনা খাতুনকে বের করে দেয়। পরে জমেনা খাতুন তার বাবার বাড়িতে গিয়ে আশ্রয় নেয়। সে বাড়িতে না থাকায় ছেলে ও মেয়ে বাইরে খেলাধুলা করতে জাওয়ায় দুপুরে নুর আলম তার মেয়ে আরোবি ও ছেলে আলিফকে মারধর করাসহ গরম লোহার খুনতি দিয়ে পায়ের নিচে আঘাত করে। এতে আরোবির ডান পায়ের তালু ও আলিফের বা পায়ের তালু পুড়ে যায়। এখবর পেয়ে জয়মেনা খাতুন বাড়িতে এসে বিকাল ৪টার দিকে সাভার উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে চিকিৎসার জন্য ভর্তি করে।

এ বিষয়ে সাভার মডেল থানার পরিদর্শক (ওসি) কাজী মঈনুল ইসলাম বলেন,ঘটনার পর থেকে অভিযুক্ত পলাতক রয়েছেন। তাকে আটকের চেষ্টা চলছে। এ বিষয়ে দ্রুত আইনি ব্যবস্থা নেয়া হবে।’

     এ বিভাগের আরো সংবাদ
Share via
Copy link
Powered by Social Snap