ভেজাল কারবারীদের সচেতন করা শেষ এবার পদক্ষেপ

সোহেল রানা, পাবনা প্রতিনিধিঃ

পাবনা জেলা প্রশাসক জসিম উদ্দিন বলেছেন, যারা মানুষের মুখে বিষযুক্ত ভেজাল খাদ্য তুলে দেয় তাদের সাথে কোন আপোষ নাই। সচেতন করা শেষ এবার সরাসরি পদক্ষেপ।




ভেজাল খাদ্য তৈরী করা, ভেজাল কারবারীদের অনেক সচেতন করেছি। নৈতিকতার তোয়াক্কা না করে এই পবিত্র রমজান মাসে যারা খাদ্যে ফরমালিনসহ বিভিন্ন রাসায়নিক দ্রব্য মিশিয়ে বাজারে বিক্রি করছেন তাদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেয়া শুরু হয়েছে।

ভাবতে অবাক লাগে যে খাদ্যে আপনি ফরমালিন নামক বিষ মিশাচ্ছেন সেই খাদ্য খাচ্ছে আপনার বাড়ির পাশের কেউ বা আপনার নিকট আত্মীয় অজান্তে সেই খাদ্য গ্রহণ করছে।

সাধারণ মানুষ সারাদিন পরিশ্রম করে সেই খাদ্য কিনে খাচ্ছে। এ প্রতারণা আর সহ্য করা হবে না।

যার যার অবস্থান থেকে নৈতিকতা নিয়ে ভেজাল খাদ্যের বিরুদ্ধে সোচ্চার হউন আমরা অভিযান চালাচ্ছি এ অভিযান চলবে।

আজ সোমবার ১৩মে পাবনা জেলা প্রশাসক কার্যালয়ের সম্মেলন কক্ষে পাট পণ্যের বিকাশ মূলক একটি সভায় অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক শিক্ষা ও আইসিটি শাহেদ পারভেজের সভাপতিত্বে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এ কথা বলেন।

পাটপণ্য ব্যবহারে উদ্বুদ্ধকরণ এবং বাজারে পলিথিনের ব্যবহার বর্জন করে পাটের ব্যাগ ব্যবহার করার তাগিদ দেয়া হয়। অনুষ্ঠানে বক্তারা বলেন পলিথিন পরিবেশের জন্য মারাত্মক ক্ষতিকর। তাই আমাদের পাটপণ্য ব্যবহার করে পাটের সোনালী অতিত ফিরিয়ে আনতে হবে।

অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত থেকে বক্তব্য দেন কৃষি সম্প্রসারণ অধিদপ্তর, খামারবাড়ি, পাবনার উপপরিচালক মো. আজাহার আলী, জেলা কৃষকলীগের সভাপতি শহিদুর রহমান শহিদ, ট্রাক মালিক সমিতির সভাপতি আলহাজ্ব মানিক হোসেন, সাধারণ সম্পাদক ও রানা গ্রুপের চেয়ারম্যান রুহুল আমিন বিশ্বাস রানা প্রমূখ।




অনুষ্ঠানে দুইজন পুরস্কার প্রাপ্ত পাটচাষীকে সম্বর্ধনা প্রদান করেন জেলা প্রশাসক।